গোলাপগঞ্জে নজর কাড়ছে সৌখিন কৃষকের 'দোতারা লাউ'


সামিল হোসেন : 'দোতার/গিটার লাউ' নামটি শুনে মানুষ যেমনটা আশ্চর্য হন তার চেয়ে দ্বিগুণ আশ্চর্য হচ্ছেন লাউ দেখে। দেখতে অবিকল দোতারার মতো একটি জাতের লাউয়ের দেখা মিললো গোলাপগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম আমুড়া ইউনিয়নের কদমরসুল গ্রামে। 

সরজমিনে উপজেলার আমুড়া ইউনিয়নের সাবেক ইউপি সদস্য সৈয়দ আবু বক্করের চাষকৃত জমিতে গেলে দেখা মিলে এ লাউয়ের। যদিও 'দোতারা/গিটার লাউ' নাম না তবে দেখতে দোতারার/গিটারের মত হওয়ায় তিনি এটির নাম দিয়েছেন 'দোতারা/গিটার লাউ'। 

তবে এই জাতের লাউ বিশ্বজুড়ে এটি বোতল গার্ডস বা ক্যালাবাশ নামে পরিচিত। গুগল ও উইকিপিডিয়ার তথ্য অনুযায়ী প্রায় ৮ হাজার বছরেরও বেশি আগে এই লাউয়ের আফ্রিকায় জন্ম এবং দেখতে গোলাকার হওয়ায় তখন এটি  পানির পাত্র হিসেবে ব্যবহার করা হতো। যা বর্তমানে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের একটি জনপ্রিয় খাবার। 

এ জাতের লাউ শুকিয়ে তখন ঠিক এরকমই সাজিয়ে পানির পাত্র বা বিভিন্ন কাজে ব্যবহার করা হতো। Photo Source : Google

বিদেশি এই লাউ উৎপাদনকারী সৈয়দ আবু বক্কর  জি ভয়েস টুয়েন্টিফোরকে বলেন, আমার বোন যখন লন্ডন থেকে এ লাউয়ের বীজ পাঠিয়েছেন তখন রোপন করি। তখন সন্দেহ হয় এ লাউয়ের চাষ হবে কি না আমাদের দেশের মাটিতে। তবে রোপন করার পর দেখলাম ফলনও হয়েছে। তবে দেখতে আমাদের দেশের লাউয়ের মত নয়। অবিকল দোতারার মত যার কারণে আমি এটির নাম দিয়েছি 'দোতারা/গিটার লাউ'। 

স্হানীয় বাজারের এক কাঁচামাল ব্যবসায়ী জানান, দেখতে অবিকল দোতারার মত বিদেশি এই লাউটি ব্যতিক্রমী হওয়ায় ক্রেতাদের নজর কাড়ছে ও বেচাকেনা হচ্ছে বেশ ভালো। তবে উৎপাদন কম থাকায় ক্রেতাদের চাহিদা মেটাতে পারছেন না। 

গতবছর ক্রেতাদের চাহিদা ও ফলন ভালো হওয়ায় সৈয়দ আবু বক্কর এ বছর ৫ শতক জমিতে এ লাউ রোপন করেছেন। এ বছরও ভাল ফলন হওয়ায় নিজের চাহিদা মিটিয়ে ইতিমধ্যেই তিনি হাজার টাকার লাউ তিনি স্হানীয় বাজারে বিক্রিও করেছেন। প্রথমে শখের বসে করলেও ফলন ভাল ও মানুষের চাহিদা থাকায় আগামীতে বৃহৎ আকারে বাণিজ্যিক ভাবে করার চিন্তাভাবনাও করছেন তিনি। এজন্য তিনি উপজেলা কৃষি অফিসের সহযোগিতা কামনা করেন। 

এ ব্যাপারে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আনিসুজ্জামান বলেন, এধরনের লাউয়ের খবর শুনছি। এর বীজ তিনি ইংল্যান্ড থেকে এনেছেন। উনি চাইলে আমরা পরামর্শ ও সর্বাত্মক সহযোগিতা করব।