হজে গিয়ে ভিক্ষা করায় বাংলাদেশি গ্রেপ্তার


ডেস্ক রিপোর্ট :  হজের জন্য সৌদি আরবে গিয়ে ভিক্ষা করার অভিযোগে এক বাংলাদেশিকে গ্রেপ্তার করেছে দেশটির পুলিশ হয়েছেন। গ্রেপ্তারের পর ওই হজযাত্রীকে মুচলেকা দিয়ে ছাড়িয়ে আনে সৌদিস্থ বাংলাদেশ হজ মিশন

সৌদিতে কাউন্সিলর (হজ) মো. জহিরুল ইসলামের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে অনলাইন সংবাদমাধ্যম বাংলাট্রিবিউন।

এ ঘটনায় এই হজ এজেন্সির বিরুদ্ধে নোটিশ দিয়েছে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

জানা গেছে, মতিয়ার রহমান নামের ওই হজযাত্রী ধানসিড়ি ট্রাভেল এয়ার সার্ভিস (হজ লাইসেন্স নং-৭৩৭) নামের একটি এজেন্সির মাধ্যমে হজে গিয়েছিলেন।

গত ২২ জুন সৌদি স্থানীয় সময় আনুমানিক বিকেল ৫টার দিকে মদিনায় ভিক্ষা করতে গিয়ে সৌদি পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হন তিনি। 

সৌদিস্থ বাংলাদেশ হজ মিশন জানায়, এই হজযাত্রীর বসবাসের জন্য বাড়ি-হোটেলের ব্যবস্থাও করেনি ধানসিড়ি ট্রাভেল এয়ার সার্ভিস। একইসঙ্গে এই হজযাত্রীকে গাইড করার মতো কোনো মোনাজ্জেম ছিল না । মতিয়ার রহমান নিজের তার ব্যাগ ছিনতাই হওয়ার নাটক সাজিয়ে সেখানে ভিক্ষা করছিলেন। 

এ ঘটনায় ধানসিড়ি ট্রাভেল এয়ার সার্ভিসের (হজ লাইসেন্স নং-৭৩৭) স্বত্বাধিকারী আল মামুনকে নোটিশ দিয়েছে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়। 

মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব আবুল কাশেম মুহাম্মদ শাহীন সই করা নোটিশে বলা হয়েছে, আপনার পরিচালিত ধানসিড়ি ট্রাভেল এয়ার সার্ভিসের বিরুদ্ধে হজ ও ওমরাহ ব্যবস্থাপনা আইন, ২০২১ এর ১৩ ধারা অনুযায়ী কেন প্রশাসনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না তার জবাব ৩ দিনের মধ্যে মন্ত্রণালয়ে জমা দিতে হবে।

অভিযোগে আরও বলা হয়, এ ঘটনায় সৌদিতে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ হয়েছে। এই এজেন্সির এ কার্যক্রমের কারণে সুষ্ঠু হজ ব্যবস্থাপনা ব্যাহত হয়েছে। সরকারের হজ ব্যবস্থাপনা সংশ্লিষ্ট নির্দেশনা উপেক্ষিত হয়েছে, যা হজ ও ওমরাহ ব্যবস্থাপনা আইন, ২০২১ এর পরিপন্থী।